1. shahalom.socio@gmail.com : admin :
  2. mshc@hotmail.co.uk : ইউকে বিডি২৪ : ইউকে বিডি২৪
  3. : :
  4. zufgvwrswv@bqocm.com : i30snk19ry cja1ten1jc : i30snk19ry cja1ten1jc
মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ০১:০৩ পূর্বাহ্ন
নোটিশঃ
#ঘরে_থাকুন, নিরাপদ থাকুন! নিয়মিত হাত পরিষ্কার করুন, অন্যের সংস্পর্শ এড়িয়ে চলুন, সচেতন থাকুন।
সংবাদ শিরোনাম

হোয়াটসঅ্যাপে কল কি নিরাপদ?

  • আপডেট করা হয়েছে শুক্রবার, ৮ মার্চ, ২০২৪
  • ২০ বার পড়া হয়েছে

 

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে যতগুলো মাধ্যম রয়েছে, এর মধ্যে হোয়াটসঅ্যাপের জনপ্রিয়তা দিন দিন বাড়ছে। বিশেষ করে এর নিরাপত্তাব্যবস্থার কারণে। প্ল্যাটফরমটি পরিচালনা করে ফেসবুক ও ইনস্টাগ্রামের মালিকানা প্রতিষ্ঠান মেটা।

এই প্ল্যাটফরম অ্যান্ড টু অ্যান্ড অ্যাকক্রিপটেড। তার মানে আপনার বার্তা, ফাইল এবং কল সবই সুরক্ষিত। তা ছাড়া কোম্পানি নিজেই বলেছে যে, তারা চাইলেও আপনার মেসেজ পড়তে পারবে না।

হোয়াটসঅ্যাপে পরিচিত ব্যক্তিদের পাশাপাশি অপরিচিত ব্যক্তিদেরও সরাসরি ফোন করা যায়। ফলে বার্তা, ছবি বা ভিডিও আদান-প্রদানের পাশাপাশি নিয়মিত অডিও-ভিডিও কল করেন অনেকেই।

হোয়াটসঅ্যাপে অডিও বা ভিডিও কল করে স্মার্টফোন হ্যাক করার বেশ কয়েকটি ঘটনা ঘটেছে, তবে সেগুলো বেশ আগের। সে সময় হোয়াটসঅ্যাপে থাকা একটি নিরাপত্তা ত্রুটি কাজে লাগিয়ে ফোনকলের মাধ্যমে বেশ কয়েকজনের স্মার্টফোন হ্যাক করেছিলেন সাইবার অপরাধীরা। পরে সেই নিরাপত্তা ত্রুটির সমাধান করেছে হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ।

হোয়াটসঅ্যাপে মিসড কল পাঠিয়ে ‘জিরো ক্লিক এক্সপ্লোয়েট’ ধাঁচের সাইবার হামলাও চালিয়েছিল সাইবার অপরাধীরা। জিরো ক্লিক এক্সপ্লোয়েট মূলত একধরনের হ্যাকিং কৌশল।

এই কৌশল কাজে লাগিয়ে নির্দিষ্ট ব্যক্তিদের অজান্তেই তাদের স্মার্টফোন হ্যাক করা সম্ভব। তবে হোয়াটসঅ্যাপে মিসড কল পাঠিয়ে স্মার্টফোন হ্যাক করতে না পারলেও গোপনে স্পাইওয়্যার ইনস্টল করতে সক্ষম হয়েছিল সাইবার অপরাধীরা। পরে সেই নিরাপত্তা ত্রুটির সমাধান করেছে হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ।

হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকাউন্ট হ্যাক হলে বুঝবেন যেভাবে

১. আপনি এমন বার্তা দেখতে পারেন যা আপনি পাঠাননি।

২. প্রোফাইল ফটো বা নাম পরিবর্তন হতে পারে।

৩. বিভিন্ন ডিভাইস থেকে লগইন হতে দেখা যাবে।

৪. অপরিচিত নম্বর থেকে কল আসা-যাওয়া দেখা যেতে পারে।

হোয়াটসঅ্যাপের সুরক্ষায় করণীয়

আপনার হোয়াটসঅ্যাপের নিরাপত্তা যেভাবে উন্নত করবেন—

১. আপনার রেজিস্ট্রেশন কোড বা ভেরিফিকেশন পিন কখনই অন্য কারও সঙ্গে শেয়ার করবেন না।

২. টু-স্টেপ ভেরিফিকেশন অন করে রাখুন এবং একটি ই-মেইল ঠিকানাও প্রদান করুন। আপনি পিন ভুলে গেলে এটি পুনরুদ্ধারের জন্য উপযোগী হবে।

৩. আপনার ফোনে একটি ভয়েসমেইল পাসওয়ার্ড সেট করুন।

আইটি/আবির

About Author

শেয়ার করুন

Facebook Comments

আরো সংবাদ পড়ুন