1. shahalom.socio@gmail.com : admin :
  2. mshc@hotmail.co.uk : ইউকে বিডি২৪ : ইউকে বিডি২৪
  3. : :
  4. zufgvwrswv@bqocm.com : i30snk19ry cja1ten1jc : i30snk19ry cja1ten1jc
মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ১২:০৮ পূর্বাহ্ন
নোটিশঃ
#ঘরে_থাকুন, নিরাপদ থাকুন! নিয়মিত হাত পরিষ্কার করুন, অন্যের সংস্পর্শ এড়িয়ে চলুন, সচেতন থাকুন।
সংবাদ শিরোনাম

মস্কোর কনসার্টে হামলায় নিহত ১৩৩

  • আপডেট করা হয়েছে শনিবার, ২৩ মার্চ, ২০২৪
  • ১৩ বার পড়া হয়েছে

 

রাশিয়ার রাজধানী মস্কোর ক্রোকাস সিটি হলের কনসার্টে অতর্কিত হামলায় ১৩৩ জন নিহত এবং ১০০ জনের বেশি আহত হয়েছেন। শুক্রবার রাতের এ হামলার পরপরই দায় স্বীকার করেছে ইসলামিক স্টেট-খোরাসান (আইএসআইএস-কে)। এদিকে এ ঘটনায় রোববার এক দিনের জাতীয় শোক ঘোষণা করে হামলায় জড়িত সবাইকে শাস্তির প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। খবর আল জাজিরা, এএফপি, রয়টার্স, বিবিসির।

স্থানীয় সময় শুক্রবার মস্কোর ক্রোকাস সিটি হল কমপ্লেক্সের কনসার্ট হলে এই হামলা চালানো হয়। এ হামলাকে রাশিয়ার আধুনিক ইতিহাসে সবচেয়ে ভয়াবহ হামলা বলে উল্লেখ করেছে রাশিয়ার সংবাদমাধ্যম আরটি। অনলাইন ফুটেজে দেখা যাচ্ছে, পাঁচ বন্দুকধারী হামলাতে অংশ নিয়েছে। তাদের হাতে স্বয়ংক্রিয় আগ্নেয়াস্ত্রসহ অন্যান্য সামরিক অস্ত্র ছিল বলে ধারণা করা হচ্ছে। হামলাকারীরা হলের নিরস্ত্র নিরাপত্তাকর্মীকে হত্যা করে ভেতরে ঢুকে তাণ্ডব চালায়। এ সময় তারা ভেতর থেকে হলটি বন্ধ করে দিয়েছিল। কনসার্ট হলের একেবারে ভেতরে ঢুকে চেয়ারগুলোতে তারা আগুন ধরিয়ে দেয়। ওই আগুন পুরো বিল্ডিংয়ে ছড়িয়ে পড়ে।

হামলার পর যুক্তরাষ্ট্র বলছে, মস্কোতে একটি পরিকল্পিত সন্ত্রাসী হামলার তথ্য ছিল তাদের কাছে। বিষয়টি তারা মস্কোকে এ মাসের শুরুর দিকে জানিয়েছিলও। এদিকে হামলার পরই ক্রেমলিন সরাসরি কাউকে দায়ী না করলেও কোনো কোনো আইনপ্রণেতা এ হামলার সঙ্গে ইউক্রেন জড়িত বলে অভিযোগ করেন। সাবেক রুশ প্রেসিডেন্ট দিমিত্রি মেদভেদেভ টেলিগ্রামে লিখেছেন, হামলার জন্য দায়ী ব্যক্তিরা যদি ইউক্রেনীয় হয়ে থাকে, তাদের সবাইকে খুঁজে বের করতে হবে এবং সন্ত্রাসী হিসাবে তাদের ধ্বংস করে দিতে হবে। তবে, ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কির উপদেষ্টা মাইখাইলো পোডোলিয়াক হামলার সঙ্গে ইউক্রেনের জড়িত থাকার কথা অস্বীকার করেছেন।

মৃতের সংখ্যা আরও বাড়ার শঙ্কা প্রকাশ করে রাশিয়ার তদন্ত কমিটি বলেছে, ‘মৃতের সংখ্যা আরও বাড়বে। প্রাথমিক তথ্য অনুযায়ী, গুলির আঘাতে এবং রাসায়নিকের বিষক্রিয়ায় মানুষের মৃত্যু হয়েছে। কনসার্ট হলে সন্ত্রাসীরা অটোমেটিক রাইফেল দিয়ে হামলা চালিয়েছে। হামলায় ব্যবহৃত রাইফেলসহ অন্য যেসব অস্ত্র সন্ত্রাসীরা ফেলে গেছে সেগুলো জব্দ করা হয়েছে।’ এছাড়া কনসার্ট হলে আগুন জ্বালিয়ে দেওয়ার জন্য সন্ত্রাসীরা দাহ্য তরল পদার্থ ব্যবহার করেছে।

এ হামলার সঙ্গে সরাসরি জড়িত থাকার অভিযোগে চারজনসহ মোট ১১ জনকে গ্রেফতার করেছে রাশিয়ার আইন-শৃঙ্খলারক্ষাকারী বাহিনী।

এদিকে ইসলামিক স্টেট গ্রুপ এ হামলার দায় স্বীকার করেছে। টেলিগ্রাম চ্যানেলে এ হামলায় অংশগ্রহণকারী চারজনের ছবি প্রকাশ করে বলেছে, মস্কোর উপকণ্ঠে একটি বড় জনসমাবেশে হামলার পর যোদ্ধারা নিরাপদে তাদের ঘাঁটিতে ফিরে গেছেন। ইসলামের বিরোধিতাকারী বিভিন্ন দেশের বিরুদ্ধে যুদ্ধ শুরুর অংশ হিসাবেই এ হামলা করা হয়েছে। আইএসের চার যোদ্ধা মেশিনগান, পিস্তল, চাকু আর বোমা মেরে এ হামলা বাস্তবায়ন করেছে বলে তাদের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে।

জড়িত সবাইকে শাস্তি দেওয়া হবে: রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, এ হামলার পেছনে যারাই রয়েছে, তাদের সবাইকে শাস্তির আওতায় আনা হবে। শনিবার জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে পুতিন বলেন, প্রাথমিক তদন্তে তারা জানতে পেরেছেন হামলাকারীদের সীমান্ত পার করে দিতে ইউক্রেনে একটি দল কাজ করছিল। নিহতদের স্মরণে রোববার রাষ্ট্রীয় শোক ঘোষণা করেছেন পুতিন। এছাড়া যারাই এ হামলার পেছনে জড়িত, তাদের সবাইকে শাস্তি দেওয়া হবে বলে তিনি ঘোষণা দিয়েছেন।

এ সপ্তাহের ছুটিতে মস্কোতে যেসব অনুষ্ঠান আয়োজনের কথা ছিল সেগুলো সবই বাতিল করেছে কর্তৃপক্ষ। সেই সঙ্গে মস্কোর চারটি প্রধান বিমানবন্দরের নিরাপত্তাও জোরদার করা হয়েছে।

আন্তর্জাতিক/আবির

About Author

শেয়ার করুন

Facebook Comments

আরো সংবাদ পড়ুন